kalerkantho

শিশুদের ঈদ

ঈদের শতভাগ আনন্দ শিশুদের। তাদের রঙিন জগৎ পোশাকে ধরা দেয় ঈদে। তাই শিশুর ঈদ পোশাক হতে হবে ঠিক যেমন শিশু চায়। পোশাকঘরেও তাই বৈচিত্র্যের কমতি নেই। বাজার ঘুরে শিশু পোশাকের খোঁজ দিচ্ছেন মারজান ইমু

১৩ আগস্ট, ২০১৮ ০০:০০



শিশুদের ঈদ

রঙ বাংলাদেশ

বৃষ্টি ও গরমের এই আবহাওয়ায় শিশুর পোশাকে আরামের দিকটি প্রাধান্য দিয়েছেন ডিজাইনাররা। আরামদায়ক ফ্যাব্রিকসের পোশাকে উৎসবের ষোলো আনা আমেজ এসেছে বাহারি রং, নকশা ও নতুন নতুন কাটছাঁটে। শুধু শিশুদের পোশাক নিয়ে কাজ করে ফ্যাশন হাউস শৈশব। শূন্য থেকে ১৩ বছর বয়সী শিশুদের সব ধরনের পোশাক মিলবে এখানে। এবারের ঈদ কালেকশন নিয়ে কথা হলো শৈশবের ডিজাইনার টিমের প্রধান মোহাম্মদ সামিদের সঙ্গে। বললেন, ‘বৃষ্টিবান্ধব ফ্যাব্রিকস, যেমন—ভয়েল, লিনেন, সুতি, জর্জেট, সিফন ও সিল্ক থাকছে শিশুর ঈদ পোশাকে। দেশীয় বিভিন্ন মোটিফের পাশাপাশি থাকছে আধুনিক কাটিং প্যাটার্ন। শিশুদের বর্ণিল মনোজগতের মতোই উজ্জ্বল সব রং বেছে নেওয়া হয়েছে পোশাকে। মেয়েশিশুদের সব ধরনের পোশাক এনেছি আমরা। ছেলেশিশুদের অন্য সব পোশাকের পাশাপাশি এই ঈদের নতুন সংযোজন কাবলি সেট। চাইলে আলাদা করে কটিও কিনতে পারবেন।’

ফ্যাশন হাউস আড়ং ঘুরে দেখা গেল শিশু কর্নারে সাজানো বাহারি সব পোশাক। নিউ বর্ন থেকে শুরু করে সব বয়সীদের কালেকশন আলাদা করে সাজানো। মেয়েশিশুদের জন্য নিমা, ফ্রক, টিউনিক, স্কার্ট, টপস, ক্যাপ্রি, কামিজের পাশাপাশি থাকছে শাড়ি, লেহেঙ্গা, ঘাগড়াচোলি। সঙ্গে মিলিয়ে নিতে পারেন প্যান্ট, ডিভাইডার, লেগিংস অথবা নরম জিন্স। ছেলেশিশুদের জন্য আছে পাঞ্জাবি সেট, আলাদা পায়জামা ও কটি। এ ছাড়া শার্ট, টি-শার্ট, ঢিলেঢালা গেঞ্জি, ফতুয়া, নিমা, হাফপ্যান্ট, থ্রি-কোয়ার্টার প্যান্ট, ট্রাউজার, ফুলপ্যান্ট পাবেন আলাদা করে। বয়স অনুযায়ী সব ধরনের সাইজেই পাওয়া যাবে শিশুদের এসব ঈদ পোশাক। বাবার সঙ্গে মিলিয়ে নকশা হয়েছে ছোট্ট শিশুর পাঞ্জাবি। পাঞ্জাবির সঙ্গে বাহারি কটি আর নাগরাও পাবেন।

ফ্যাশন হাউস লা রিভের ঈদ কালেকশনও বেশ বর্ণিল। গরমের কথা মাথায় রেখে সুতি কাপড়কে প্রাধান্য দেওয়া হয়েছে। সুতির সঙ্গে কাতান, মসলিন বা সিল্কের ফিউশনে উৎসব ফুটিয়ে তোলা হয়েছে। মিরর ওয়ার্ক, এমব্রয়ডারি, কারচুপি, ব্লক ও স্ক্রিন প্রিন্টের নকশারও দেখা মিলল। ছেলেশিশুদের পোশাকেও সুতির প্রাধান্য। পাঞ্জাবিতে সিল্ক বা মসলিন থাকছে অল্প পরিসরে। ইয়েলো কিডস, কে ক্রাফট, অঞ্জন’স, যাত্রা, অরণ্য, কিডস ক্লাবসহ বেশ কয়েকটি ফ্যাশন হাউস ঘুরে এবারের ঈদে শিশু পোশাকের ধারার একটা ধারণা মিলল।

শিশুদের ঈদ পোশাকে নানা ধরনের মোটিফের মধ্যে প্রাকৃতিক মোটিফ প্রাধান্য পেয়েছে। ফুল, প্রজাপতি, পাখি ইত্যাদি শিশুদের সহজেই আকর্ষণ করে বলে সেসব দিয়ে সাজানো হয়েছে ঈদ সংগ্রহ। ডিজাইন মাধ্যম হিসেবে নানা ধরনের প্রিন্ট, সুতার কাজ, এমব্রয়ডারি, প্যাচওয়ার্ক ছাড়াও কারচুপির কাজ থাকছে। এখন সব ফ্যাশন হাউস, এমনকি নন-ব্র্যান্ডের শপেও বাবা ও ছেলেবাবুর থিম মিলিয়ে পাঞ্জাবির নকশা করা হচ্ছে। চাইলে পাবেন টি-শার্টও।



মন্তব্য