kalerkantho


৩০৪ প্রকৌশলী নেবে স্থানীয় সরকার বিভাগ

সহকারী প্রকৌশলী (সিভিল) পদে ৫৩ জন ও উপসহকারী প্রকৌশলী (সিভিল) পদে ২৫১ জন নিয়োগ দেবে স্থানীয় সরকার, পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রণালয়ের স্থানীয় সরকার বিভাগ। আবেদনের শেষ তারিখ ২ অক্টোবর। বিস্তারিত জানাচ্ছেন ফরহাদ হোসেন

১৩ সেপ্টেম্বর, ২০১৭ ০০:০০



৩০৪ প্রকৌশলী নেবে স্থানীয় সরকার বিভাগ

স্থানীয় সরকার বিভাগের নিয়ন্ত্রণাধীন দেশের বিভিন্ন পৌরসভায় পদায়নের জন্য সহকারী প্রকৌশলী ও উপসহকারী প্রকৌশলী পদে ৩০৪ জন লোকবল নিয়োগ করা হবে। ৫ সেপ্টেম্বর ইত্তেফাক ও যুগান্তর পত্রিকায় প্রকাশ করা হয়েছে বিজ্ঞপ্তিটি।

পাওয়া যাবে স্থানীয় সরকার বিভাগের ওয়েবসাইটেও (www.lgd.gov.bd)।

আবেদনের যোগ্যতা

সহকারী প্রকৌশলী (সিভিল) প্রথম শ্রেণির এ পদটির জন্য শিক্ষাগত যোগ্যতা থাকতে হবে প্রকৌশলে স্নাতক ডিগ্রি অথবা অথবা এএমআইইএ ও (পুর) সেকসান পাস হতে হবে। উপসহকারী প্রকৌশলী (সিভিল) দ্বিতীয় শ্রেণির এ পদের জন্য পুর প্রকৌশলে ডিপ্লোমা অথবা স্বীকৃত প্রতিষ্ঠান থেকে সমমান শিক্ষাগত যোগ্যতা থাকতে হবে। ২ অক্টোবর ২০১৭ তারিখে সাধারণ প্রার্থীর বয়স থাকতে হবে ১৮ থেকে ৩০ এর মধ্যে। তবে মুক্তিযোদ্ধা/শহীদ মুক্তিযোদ্ধার সন্তান ও শারীরিক প্রতিবন্ধীদের বেলায় ৩২ বছর। মুক্তিযোদ্ধা ও শহীদ মুক্তিযোদ্ধার নাতি-নাতনিদের ক্ষেত্রে বয়সসীমা ৩০ বছর। বিভাগীয় প্রার্থীদের ক্ষেত্রে বয়সসীমা শিথিলযোগ্য।

আবেদন যেভাবে

আবেদন ফরমের নমুনা কপি প্রকাশিত বিজ্ঞপ্তিতে পাওয়া যাবে। ওই ছক অনুসারে কম্পিউটারে কম্পোজ করে আবেদন পূরণ করা যাবে।

স্থানীয় সরকার বিভাগের ওয়েবসাইট (www.lgd.gov.bd) থেকেও আবেদন ফরম ডাউনলোড করে পূরণ করা যাবে। আবেদন সচিব, স্থানীয় সরকার বিভাগ, বাংলাদেশ সচিবালয়, ঢাকা (দৃঃ আঃ- উপসচিব, পৌর-১ শাখা) বরাবরে ২ অক্টোবর ২০১৭ তারিখের মধ্যে ডাকযোগে পৌঁছাতে হবে। আবেদনপত্রের খামের ওপর পদের নাম, নিজ জেলা এবং প্রযোজ্য ক্ষেত্রে কোটার নাম উল্লেখ করতে হবে। চাকরিরতদের কর্তৃপক্ষের মাধ্যমে আবেদন করতে হবে। একই দপ্তরের ১ আগস্ট ২০১৩ তারিখের নিয়োগ বিজ্ঞপ্তিতে যারা আবেদন করছিল, তাদের পুনরায় আবেদনের প্রয়োজন নেই।

লাগবে যা যা

আবেদনপত্রের সঙ্গে সম্প্রতি তোলা চার কপি পাসপোর্ট সাইজের সত্যায়িত ছবি, প্রার্থীর নাম-ঠিকানা উল্লেখপূর্বক ১০ টাকা মূল্যমানের অব্যবহূত ডাকটিকিটযুক্ত সাড়ে ৯ বাই সাড়ে ৪ ইঞ্চি খাম এবং সচিব, স্থানীয় সরকার বিভাগের অনুকূলে ১-৩৭০১-০০০১-২০৩১ কোড নম্বরে পরীক্ষার ফি বাবদ ২০০ টাকার (অফেরতযোগ্য) ট্রেজারি চালানের (সোনালী ব্যাংকের) মূল কপি জমা দিতে হবে। ব্যাংক ড্রাফট/ পে-অর্ডার অথবা পোস্টাল অর্ডার গ্রহণযোগ্য নয়। লিখিত পরীক্ষায় উত্তীর্ণ প্রার্থীদের মৌখিক পরীক্ষার সময় লাগবে শিক্ষাগত যোগ্যতার মূল সনদ, জাতীয় পরিচয়পত্র, প্রথম শ্রেণির গেজেটেড কর্মকর্তার দেওয়া চারিত্রিক সনদ, ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান/ পৌর মেয়র অথবা সিটি করপোরেশনের কাউন্সিলরের দেওয়া নাগরিকত্ব সনদ এবং কোটার ক্ষেত্রে সংশ্লিষ্ট সনদের মূল কপি।

পরীক্ষার ধরন

সূত্র জানায়, প্রার্থী বাছাই ও চূড়ান্ত নিয়োগে লিখিত, মৌখিক পরীক্ষা নেওয়া হবে। ২০১০ সালের এ পদের নিয়োগ পরীক্ষায় মোট ১০০ নম্বরের লিখিত পরীক্ষা নেওয়া হয়েছিল। ২০১২ সালের একই পদের নিয়োগ পরীক্ষায় ৮০ নম্বরের এমসিকিউ পদ্ধতিতে লিখিত পরীক্ষা নেওয়া হয়েছিল। তবে এ বছর পরীক্ষার নম্বর পরিবর্তন হতে পারে। দুই পদের জন্য লিখিত পরীক্ষায় ইংরেজি, গণিত, সাধারণ জ্ঞানসহ পদসংশ্লিষ্ট প্রশ্ন করা হয়ে থাকে। এ বছরের নিয়োগ পরীক্ষা পদ্ধতিতে পরিবর্তন আসতে পারে।

পরীক্ষার প্রস্তুতি

মুক্তাগাছা পৌরসভায় উপসহকারী প্রকৌশলী পদে কর্মরত সাদেক মিয়া জানান, পদ অনুসারে আলাদা প্রশ্ন করা হয়। ২০১০ সালের নিয়োগ পরীক্ষায় ইংরেজি ২০, গণিত ২০ এবং সাধারণ জ্ঞানে ১৫ নম্বরের প্রশ্ন করা হয়েছিল। বাকি নম্বর ছিল পদসংশ্লিষ্ট বিভাগীয় বিষয়ে। ইংরেজিতে গ্রামার, ট্রান্সলেশন, প্যারাগ্রাফ রাইটিং বিষয়ে প্রশ্ন করা হয়। গণিতে বীজ গণিত ও পাটি গণিত অংশ থেকে প্রশ্ন করা হয়। প্রশ্ন আসে অষ্টম, নবম ও দশম শ্রেণির বই থেকে। সাধারণ জ্ঞান বিষয়ে দৈনন্দিন বিজ্ঞান, বাংলাদেশ বিষয়াবলি ও আন্তর্জাতিক বিষয়াবলি থেকে প্রশ্ন করা হয়। পদসংশ্লিষ্ট বিষয়ে গুরুত্বপূর্ণ অধ্যায়গুলো থেকে বেশি প্রশ্ন আসে। লিখিত পরীক্ষায় উত্তীর্ণদের ডাক পড়বে মৌখিক বা ভাইভা পরীক্ষার জন্য।

বেতন-ভাতা

নিয়োগপ্রাপ্তরা জাতীয় বেতন স্কেল ২০১৫ অনুসারে বেতন-ভাতা ও অন্যান্য সুযোগ-সুবিধা পাবেন। সহকারী প্রকৌশলী (সিভিল) পদে ২২০০০-৫৩০৬০ এবং উপসহকারী প্রকৌশলী (সিভিল) পদে ১৬০০০-৩৮৬৪০ টাকা স্কেলে বেতন পাবেন


মন্তব্য