English

অনলাইন

আজকের পত্রিকা

ফিচার

সম্পাদকীয়

প্রধান শিক্ষক গ্রেপ্তার

  • পঞ্চগড় ও জলঢাকা (নীলফামারী) প্রতিনিধি   
  • ১০ সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ০০:০০

নীলফামারীর জলঢাকায় স্কুলছাত্রীকে যৌন হয়রানির অভিযোগে এক প্রধান শিক্ষককে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। গ্রেপ্তারকৃত শিক্ষকের নাম ওয়ারেজ আলী। তিনি জলঢাকা পাইলট বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক। জানা যায়, শিক্ষক ওয়ারেজ আলী তাঁর প্রতিষ্ঠানের সপ্তম শ্রেণির এক ছাত্রীকে উপবৃত্তির টাকা তোলার কথা বলে মোবাইল ফোনের একটি সিম কিনে দেন। কিন্তু এর পর থেকে ওই সিমে তাকে বিভিন্নভাবে হয়রানি করেন ওই শিক্ষক। শিক্ষকের এমন আচরণে অতিষ্ঠ হয়ে ওই ছাত্রী তার নানিকে বিষয়টি জানায়। ঘটনা শুনে ওই ছাত্রীর নানি জলঢাকা থানায় একটি অভিযোগ করেন। পরে পুলিশ ওই শিক্ষককে গ্রেপ্তার করে। তবে হয়রানির অভিযোগ অস্বীকার করে ওই শিক্ষক বলেন, নাতনি হিসেবে ওই ছাত্রীর সঙ্গে মোবাইলে মশকরা করেছি। বিদ্যালয়ের আহ্বায়ক কমিটিকে কেন্দ্র করে একটি পক্ষ পরিকল্পিতভাবে আমাকে ফাঁসিয়েছে। এ ব্যাপারে জলঢাকা থানার ওসি মোস্তাফিজার রহমান বলেন, মোবাইলের রেকর্ড শুনে ঘটনার সত্যতা পাওয়া গেছে।এদিকে পঞ্চগড়ের বোদা উপজেলায় বোদা পাইলট বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের এক ছাত্রীকে শ্লীলতাহানির অভিযোগে শিক্ষক আব্দুর রাজ্জাক রাজুর বিচারের দাবিতে মানববন্ধন করেছে শিক্ষার্থী ও স্থানীয় লোকজন। গতকাল রবিবার সকালে বোদা বাজারের কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারের সামনে এ মানববন্ধন করা হয়। এ ব্যাপারে বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক রবিউল আলম সাবুল বলেন, এ ঘটনায় আমরা একটি তদন্ত কমিটি গঠন করেছি। তদন্ত কমিটিকে ১০ দিনের মধ্যে প্রতিবেদন দিতে বলা হয়েছে। প্রতিবেদন পেলে সেই আলোকে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

প্রিয় দেশ- এর আরো খবর