English

অনলাইন

আজকের পত্রিকা

ফিচার

সম্পাদকীয়

ডিমলায় ভাইয়ের ঘুষিতে প্রাণ গেল বড় ভাইয়ের

হিজলায় মিলল নিখোঁজ প্রবাসীর লাশ

  • প্রিয় দেশ ডেস্ক   
  • ১ সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ০০:০০

নীলফামারীর ডিমলায় পূর্ববিরোধের জেরে ছোট ভাইয়ের কিল-ঘুষিতে প্রাণ গেছে যুবকের। অন্যদিকে বরিশালের হিজলায় নৌকাডুবির ঘটনায় নিখোঁজ হওয়ার দুই দিন পর মিলেছে প্রবাসীর লাশ। প্রতিনিধিদের পাঠানো খবর :

নীলফামারী প্রতিনিধি জানান, ডিমলা উপজেলায় পূর্ববিরোধের জেরে ছোট ভাইয়ের কিল-ঘুষিতে প্রাণ গেছে বড় ভাই শামীম মিয়ার (৩৬)। ঘটনাটি ঘটেছে গতকাল শুক্রবার সকালে উপজেলার সুন্দরখাতা গ্রামে। এ ঘটনায় মামলা হয়েছে। পুলিশ অভিযুক্ত ছোট ভাই শাহিন হোসেনকে গ্রেপ্তার করেছে। স্থানীয়রা জানায়, জমি নিয়ে দীর্ঘদিন ধরে শামীম ও তাঁর ছোট ভাই শাহিনের মধ্যে বিরোধ চলছিল। এর জেরে গতকাল সকালে দুই ভাইয়ের মধ্যে বাগিবতণ্ডা হয়। একপর্যায়ে ছোট ভাইয়ের কিল-ঘুষিতে ঘটনাস্থলেই শামীমের মৃত্যু হয়। খবর পেয়ে পুলিশ সেখানে গিয়ে লাশ উদ্ধারসহ অভিযুক্ত শাহিনকে গ্রেপ্তার করে। এ ঘটনায় তাঁর বিরুদ্ধে মামলা করেছেন বড় ভাবি শাহানাজ বেগম। এ ব্যাপারে ডিমলা থানার পরিদর্শক (তদন্ত) সোহেল রানা বলেন, লাশের ময়নাতদন্তের জন্য জেলার মর্গে পাঠানো হয়েছে। শাহিনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

অন্যদিকে বরিশাল অফিস জানায়, হিজলা উপজেলার নলবুনিয়ার চরসংলগ্ন মেঘনা নদী থেকে ওমানপ্রবাসী রুবেল হোসেনের (২৫) লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। নৌকাডুবির ঘটনায় নিখোঁজ হওয়ার দুই দিন পর গতকাল শুক্রবার দুপুরে তাঁর লাশ উদ্ধার করা হয়। রুবেল চট্টগ্রামের ফটিকছড়ির উত্তর রাঙামাটিয়া এলাকার আবুল কাসেমের ছেলে। হিজলা নৌ পুলিশের ইনচার্জ উপপরিদর্শক (এসআই) উত্তম কুমার জানান, গত বুধবার বিকেলে মৌলভিরহাট লঞ্চঘাটসংলগ্ন হিজলায় মেঘনা নদীতে ইঞ্জিনচালিত কাঠের নৌকা (ট্রলার) ডুবে যায়। ট্রলারটি হিজলার মেমানিয়া খেয়াঘাট থেকে মৌলভিরহাটের দিকে যাচ্ছিল। এ সময় ট্রলারে থাকা সবাই সাঁতরে তীরে উঠতে সক্ষম হলেও রুবেল নিখোঁজ হন। অনেক খোঁজাখুঁজির পর গতকাল তাঁর লাশ উদ্ধার করা হয়।

প্রিয় দেশ- এর আরো খবর