English

অনলাইন

আজকের পত্রিকা

ফিচার

সম্পাদকীয়

‘বিশ্বের পঞ্চম পারমাণু শক্তি হয়ে উঠতে পারে পাকিস্তান’

  • কালের কণ্ঠ ডেস্ক   
  • ৭ সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ০০:০০

২০২৫ সাল নাগাদ পাকিস্তান বিশ্বের পঞ্চম পারমাণবিক শক্তিধর রাষ্ট্রে পরিণত হতে পারে বলে এক প্রতিবেদনে দাবি করা হয়েছে। বর্তমানে পাকিস্তানের ১৪০ থেকে ১৫০টি নিউক্লিয়ার ওয়ারহেড রয়েছে এবং চলমান ধারা বজায় থাকলে এই সংখ্যা ২০২৫ সাল নাগাদ ২২০ থেকে ২৫০টিতে পৌঁছে যেতে পারে। দেশটির পারমাণবিক অস্ত্রের মজুদ অনুসরণ করা পর্যবেক্ষকদের সর্বশেষ প্রতিবেদনে এ ধারণা প্রকাশ করা হয়েছে বলে জানায় প্রেস ট্রাস্ট অব ইন্ডিয়া (পিটিআই)।

পাকিস্তান নিউক্লিয়ার ফোর্সেস ২০১৮ শীর্ষক ওই প্রতিবেদনে জানানো হয়, পাকিস্তানে এখনকার ওয়ারহেডের সংখ্যা মার্কিন সামরিক বাহিনীর ধারণার চেয়েও অনেক বেশি। প্রতিবেদনটির তিন লেখক হ্যান্স এম ক্রিস্টেনসন, রবার্ট এস নরিস ও জুলিয়া ডায়মন্ড বলেন, এই ধারাবাহিকতা চলতে থাকলে ২০২৫ সালের মধ্যে দেশটিতে মজুদ পরমাণু ওয়ারহেডের সংখ্যা বাস্তবসম্মতভাবে বেড়ে গিয়ে ২২০ থেকে ২৫০টিতে পৌঁছাতে পারে। আর যদি তেমনটি হয়, তাহলে এটি পাকিস্তানকে বিশ্বের পঞ্চম সর্বোচ্চ পারমাণবিক অস্ত্রধর দেশে পরিণত করবে।

যুক্তরাষ্ট্রের প্রতিরক্ষা গোয়েন্দা সংস্থা ১৯৯৯ সালে এক অনুমানে জানিয়েছিল, ২০২০ সাল নাগাদ ইসলামাবাদের কাছে ৬০ থেকে ৮০টির মতো ওয়ারহেড থাকতে পারে। পাকিস্তানের পারমাণবিক সক্ষমতাবিষয়ক সাম্প্রতিক এ প্রতিবেদন বুলেটিন অব দ্য অ্যাটমিক সায়েন্টিস্টে প্রকাশিত হয়েছে। মূল প্রতিবেদক এম ক্রিস্টেনসন ওয়াশিংটনভিত্তিক ফেডারেশন অব আমেরিকান সায়েন্টিস্টের (এফএএস) সঙ্গে সম্পর্কিত নিউক্লিয়ার ইনফরমেশন প্রজেক্টেরও পরিচালক। প্রতিবেদনে গত এক দশকে পাকিস্তানের পারমাণবিক অস্ত্র নিরাপত্তা নিয়ে যুক্তরাষ্ট্রের মূল্যায়ন আত্মবিশ্বাস থেকে উদ্বেগে পরিণত হয়েছে বলে মন্তব্য করা হয়; বিশেষ করে ইসলামাবাদ কৌশলগত পারমাণবিক অস্ত্রের সূচনা করার পর এমন পরিস্থিতির সৃষ্টি হয়েছে। সূত্র : পিটিআই।

দেশে দেশে- এর আরো খবর