English

অনলাইন

আজকের পত্রিকা

ফিচার

সম্পাদকীয়

প্রবাসী গৃহকর্মী নির্যাতন বন্ধ হবে কবে?

  • কালের কণ্ঠ অনলাইন   
  • ২০ ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ২০:৪৬

কয়েকদিন আগে ফিলিপাইনের এক গৃহকর্মীর মরদেহ কুয়েতের এক ব্যক্তির ফ্রিজ থেকে উদ্ধার করে পুলিশ। তার পর থেকেই প্রবাসী গৃহকর্মীদের নিরাপত্তার বিষয়টি নিয়ে প্রশ্ন উঠছে।

শুধু ওই নারীকেই নয়, এর আগেও তার মতো অনেককেই নির্যাতনের পর হত্যা করেছে মালিকরা। ওই নারীর শরীরেও আঘাতের চিহ্ন রয়েছে।

তদন্তের স্বার্থে ফিলিপাইন থেকে কুয়েতে গৃহকর্মী পাঠানো বন্ধ রাখার ঘোষণা দিয়েছেন সে দেশের প্রেসিডেন্ট রদ্রিগো দুতার্তে।

তবে অ্যাক্টিভিস্টরা বলছেন, রেমিট্যান্স আদায়ের স্বার্থে গৃহকর্মীদের সুরক্ষার বিষয়টি নিশ্চিত না করেই তাদের কাজে পাঠিয়ে দিচ্ছে দেশগুলো। এমনকি ফিলিপাইনও সে দলে।

২০১৭ সালে ৩৩ বিলিয়ন ডলার রেমিট্যান্স অর্থনীতিতে যোগ করেছে ফিলিপাইন। ভারত এবং চীনের পর তৃতীয় রেমিট্যান্স আয়ের দেশ ফিলিপাইন।

গৃহকর্মী হিসেবে ফিলিপাইন থেকে যাওয়া বেশিরভাগেরই বয়স অনেকটাই কম। ২০ থেকে ৩০ বছর বয়সীদের সংখ্যাই বেশি। তাদের বেশিরভাগই সর্বোচ্চ মাধ্যমিক পাস।

তবে নারীদের বেশিরভাগেরর অবস্থা একেবারে করুণ। তারা একবার দেশ থেকে বাইরে গৃহকর্মী হিসেবে যাওয়ার পর ফেরার উপায় থাকে না। এমনকি যেখানে কাজ করছেন তা ভালো না লাগলেও পরিবর্তন করে নেওয়ার সুযোগ সেভাবে থাকে না।

সে কারণে জোয়ান্নাদের মতো গৃহকর্মীদের প্রাণ দিতে হয়। ফ্রিজের মধ্যে পড়ে থাকে জমাট বাঁধা মরদেহ। তবে এর ব্যতিক্রমও রয়েছে।

গৃহকর্মী নির্যাতনের ব্যাপারে কাতারভিত্তিক সংবাদমাধ্যম আলজাজিরায় মন্তব্য প্রতিবেদন লেখেন এশিয়া রিসার্চ ইনস্টিটিউটের জ্যেষ্ঠ গবেষক ড. টেরেসিটা ডেল রোসারিও। তিনি বলেন, অনেক হয়েছে। আর নয়। গৃহকর্মী নির্যাতন বন্ধের এখনই সময়।

সূত্র : আলজাজিরা

প্রবাসের কান্না...- এর আরো খবর