English

অনলাইন

আজকের পত্রিকা

ফিচার

সম্পাদকীয়

প্রতিমন্ত্রী বললেন, প্রায়দিনই বাসে যাতায়াত করবেন

  • কালের কণ্ঠ অনলাইন   
  • ১২ সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ১৮:২৩

বাংলাদেশ সরকারের তথ্য প্রতিমন্ত্রী তারানা হালিম এবার রাজধানী ঢাকার বাসে চড়ে বাসায় ফিরলেন। জানা গেছে, ওই সময় পুলিশ প্রটোকল ছিল না তার সঙ্গে। সচিবালয় থেকে বের হয়ে পুরানা পল্টন থেকে বাসে চড়ে গুলশানের বাসায় ফেরেন তিনি।

তারানা হালিম প্রতিমন্ত্রী হয়েও বাসে চড়ায় উচ্ছ্বাস প্রকাশ করেছেন সেই বাসের যাত্রীরা। বাসে চড়া থেকে শুরু করে নামা পর্যন্ত প্রতিমন্ত্রীর সঙ্গে সেলফি তুলেছেন অনেকে।

বুধবার সচিবালয়ে অফিস করে বেলা সাড়ে ১২টার দিকে পাবলিক বাসে চড়ে বাসায় ফিরতে তার আড়াই ঘণ্টা সময় লেগেছে। জানা গেছে, একজন এপিএস এবং পিও সে সময় তার সঙ্গে ছিলেন।

তারানা হালিম বলেন, সাধারণ মানুষ কীভাবে বাসে যাতায়াত করেন এবং গণপরিবহনের অবস্থা কেমন সেটা জানতে পাবলিক ট্রান্সপোর্টে চড়ে অফিস করার সিদ্ধান্ত নিয়েছি। সাধারণ যাত্রীরা একজন প্রতিমন্ত্রীকে বাসে দেখে খুবই খুশি হয়েছেন।

তিনি আরো বলেন, এখন থেকে প্রায় প্রতিদিনই বাসে যাতায়াত করবো। সাধারণ মানুষের প্রতিক্রিয়া থেকে এ ধরনের সিদ্ধান্ত নিয়েছি। প্রতিদিনই সাধারণ মানুষের একটা অভিযোগ থাকে এমপি- মন্ত্রীরা সড়ক পথের যানজট দেখেন না। তারা আসা করেন এমপি-মন্ত্রীরা একবার হলেও তাদের সঙ্গে সাধারণ যাত্রীর মতো গণপরিবহনে চলাচল করবেন। সেখান থেকেই এমন সিদ্ধান্ত নিয়েছি।

তিনি আরো বলেন, সাধারণ জনগণ যদি প্রতিদিন কষ্ট করে তাদের কর্মক্ষেত্রে পৌঁছাতে পারেন তবে আমরা কেন পারব না? আমরা সবাই মানুষ। মানুষের কষ্টগুলো কাছ থেকে দেখতেই এমন সিদ্ধান্ত।

তিনি আরো বলেন, ১৫ টাকা করে ভাড়া দিয়েছি। ভাড়া নিতে চায়নি তারা। তাদের বলেছি, সাধারণ মানুষের মতোই ভাড়া দেবো। পুরানা পল্টন থেকে ৬ নম্বর বাসে চড়েন তারানা। বাসটি তেজগাঁও হয়ে গুলশান-১ নম্বরে যায়। সেখান থেকে হেঁটে বাসায় ফেরেন তিনি।

বাসের অবস্থা সম্পর্কে তারানা হালিম বলেন, সিটের কাভারগুলো তেল চিটচিটে ছিল। এগুলো হাতে এবং নখে থাকলে কোনো খাবার খেলে মানুষ অসুস্থ হয়ে যাবে। কাভারগুলো পরিষ্কার বা পরিবর্তন করে দিতে বললাম, তারা বললো পরিষ্কার করবেন।

তিনি আরো বলেন, বাসে উঠার সময় আমাকে চিনতে পেরে চালক বললো আপা, পুলিশ ছাড়াই উঠবেন? আমি বললাম হ্যাঁ। তারা বললো আপা আমরাই তো আপনার প্রটেকশন, ওঠেন।

ঢাকা- এর আরো খবর